শতবর্ষে সত্যজিৎ

শাব্দিক প্রতিবেদন
0 রেটিং
236 পাঠক

ভূতের রাজার দরবার

(মহান সাহিত্যিক সত্যজিত্ রায়ের প্রয়াণ দিবসের শ্রদ্ধার্ঘ্য নিবেদন।)
==============================================

ভূতের রাজা -ওহে, শুনসো মন্ত্রি মর্ত্যরাজ্যে এসেসে নাকি ভাইরাস করোনা?

মন্ত্রি – ঠিক শুনসেন ভূতের রাজা।এ এক আজব ব্যামো সহজে যাসছে না।

ভূতের রাজা – শুনসি অনেকের গেছে প্রাণ,অনেকে আবার নাকি আসে ওই কি যেনো কয় কোয়ারেনটাইনে?

মন্ত্রি – আজ্ঞে,১৪ দিনের হেফাজতে।

ভূতের রাজা- আহা!কি দুঃখ বলো দেখি! বলসি এই রোগ কমার উপায় কি কিসু জানো জ্যোতিষী?

জ্যোতিষী- আজ্ঞে, যথার্থ জানি হুজুর।মানতে হবে লকডাউন,কমাতে হবে জমায়েত!

ভূতের রাজা- এ তো আজব! মর্ত্যের লোক শুনসে না বারন? পুশিস কি মারসে ঠান্ডা?

জ্যোতিষী- আজ্ঞে,মহারাজ রেশনে,বাজারে ভিড় দেখুন এতে কি আর কমবে রোগটা?

ভূতের রাজা-এই দেখ জ্যোতিষী,অনেক মানুষ পারছেনা খেতে এখন আবার চাল-গম তো যাবে চুরি..

জ্যোতিষী- আজ্ঞে, রাজা এতে উপরতলার যায় টা কি?।

ভূতের রাজা- পাঁজি দেখে বলো দেখি কবে যাবে রোগটা?

জ্যোতিষী- আজ্ঞে, হুজুর দেখে যা বুঝলাম এত তাড়াতাড়ি যাবার নয়,আগে মরুক আরও হাজার লাখ।

ভূতের রাজা – ওহে মন্ত্রী, সরকারি ভাবে মরেসে কতো দাও দেখি রিপোর্টের লিস্টি?

মন্ত্রি -আজ্ঞে,ধামাচাপা দিয়েছে অর্ধেক, বাকি অর্ধেক হয়েগেছে হিস্ট্রি।

ভূতের রাজা – যারা মরেসে তারা আছে কোথায়?

মন্ত্রি -আজ্ঞে,তারা প্লাস্টিকে মোড়া!

ভূতের রাজা – বাড়ির লোক তাদের দেখতে করেনা বায়না?

মন্ত্রি – আজ্ঞে,সে তো করসেই। কিন্তু এতে আছে ওদের রিস্কি!কোনরকমে বাড়ি পাঠাচ্ছে বুজিয়ে;

ভূতের রাজা – আহা!ওদের দুঃখে আমি আজ বড়ো দুঃখি!

মন্ত্রি – আজ্ঞে,  রাজামশাই ওরা তো এবার হবে ভূত, আমাদের এখানে রাখবেন কি?বলি হবে না তো আমাদের রিস্কি?

ভূতের রাজা – মারব টেনে এক থাপ্পড়!! ভূতের আবার সমস্যা কি?

ঠিক ঠিক ঠিক।

মন্ত্রি- তাঁকে জানাই প্রনাম যে আপনার মতো দয়াবান রে করেছে সৃষ্টি।

ভূতের রাজা- বলি চেনো নাকি সত্যজিৎ কে?

মন্ত্রি – উনিই কি আপনাকে করেছেন সৃষ্টি?

ভূতের রাজা- আলবাত! সবাই করো “সত্যজিতেরে প্রণাম”।

মন্ত্রি- তবে তো ওনার জন্যই আমরা রাজত্ব পেয়েছি ফিরে..

ভূতের রাজা – শোনো হে, মন্ত্রি উনি যখন আমাদের দিয়েছে ওনার সাহিত্যে ঠাঁই।আমরাও দেবো এই অসহায় মানুষদের ভূতলোকে থাকার জায়গা।কি তাইতো মন্ত্রি?

মন্ত্রি – আপনি মহান।আপনার থেকেই সাহস পাই আর কি।
আসলে ২৫ শে বৈশাখ আর সত্যজিৎ রায়ের জন্মদিন এই দুটো দিন এলেই বাঙালি কেমন ভাবুক হয়ে পরে,কেনো হবে না বলুন তো?এতো বছর পরেও একটা মানুষের কাজ গুলো এতো প্রাসঙ্গিক থাকতে পারে এবং আগামী কয়েক দশকও থাকবে..তাই শাব্দিক জানায় মহারাজাআআআ তোমারে সেলাম ! সেলাম.. 

©️ শাব্দিক এবং শঙ্খচিল

আপনার রেটিং দিন:
[Total: 0 Average: 0]
আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন:

রেটিং ও কমেন্টস জন্য



নতুন প্রকাশিত